Latest NewsTechnology

সাবধান! হোয়াটস্যাপ-এ হার্ট ইমোজি পাঠালেই হবে জরিমানা

এবার থেকে যদি আপনি হার্ট ইমোজি পাঠান তাহলে আপনাকে সমস্যায় পড়তে হতে পারে। যিনি পাঠাবেন, তার জেল ও জরিমানা দুয়ের সম্মুখীন হতে পারে। ইতিমধ্যেই এই নতুন নিয়ম চালু করা হয়েছে। তবে এই নিয়ম সৌদি আরবের বাসিন্দাদের জন্য।

জানা গেছে, নিয়ম ভেঙে কেউ হার্ট ইমোজি সেন্ড করেন তাহলে সৌদি আরবের মুদ্রা অনুযায়ী 100,000 SR জরিমানা করা হবে, যা প্রায় 19 লাখ 90 হাজার ৩২৮ ভারতীয় টাকার সমান। এছাড়াও তার পাঁচ বছরের জেলও হতে পারে।

সৌদি আরবের AFA এর সদস্য Al Moataz এক সংবাদমাধ্যমে জানিয়েছেন, হার্ট ইমোজি পাঠানো হল কাউকে হেনস্তা করার সমান। Whatsapp এ চ্যাট করার সময় কেউ যদি হার্ট এর ছবি বা ইমোজি পাঠায় তাহলে তার বিরুদ্ধে আইনি পদক্ষেপ নেওয়া হবে। অভিযুক্তের বিরুদ্ধে দোষ প্রমাণিত হলে কড়া শাস্তিও পেতে হবে।

এর পাশাপাশি যদি কেউ অনলালইনে কোনও ব্যক্তিকে যে কোনও ভাবে অপমাণ করে তাহলেও প্রেরককে কঠিন শাস্তির মুখে পড়তে হবে।

এবিষয়ে Al Moataz আরও জানিয়েছেন, “আমরা চাই অনলাইনে চ্যাটিংয়ের সময় কেউ যেন কাউকে না হেনস্তা করে। এমনকী, অনিচ্ছা সত্ত্বেও যদি কোনও ব্যক্তির কাছে অপ্রিয় কোনও মেসেজ পাঠানো হয় তাহলেও তা অপরাধ বলেই বিবেচিত হবে। যদি কোনও Whatsapp ব্যবহারকারী বারবার একই অপরাধ করেন তাহলে 300,000 SR জরিমানা হবে, ভারতীয় মুদ্রায় যা প্রায় 59 লাখ 70 হাজার 984 টাকার সমান। তার সাথে সর্বাধিক 5 বছরের জেল খাটতে হতে পারে।

যদিও এর আগেও এমন আইন এনেছিল সৌদি সরকার। গত বছরের নভেম্বর মাসে একটি Whatsapp গ্রুপ থেকে এক ব্যক্তিকে বের করে দেওয়ার অপরাধে এক অ্যাডমিনের 5 লাখ SR জরিমানা করা হয়েছিল, যা প্রায় 1 কোটি ভারতীয় টাকার সমান।

Prantosh Biswas

Prantosh is a student of Mathematics and a Freelance Website and Mobile Application (Android & iOS) Developer.

Related Articles

Subscribe
Notify of
guest
0 Comments
Inline Feedbacks
View all comments

Adblocker Detected

Please turn off the adblocker to view the page. This will help us to maintain our website.